‘শিবলিঙ্গকে যাঁরা অপমান করে, তাঁরাই যৌনকর্মী’, Saayoni Ghosh-কে আক্রমণ Soumitra khan-র

সায়নী ঘোষের (Saayoni Ghosh) করা টুইট নিয়ে জল্পনা এখনও থামেনি। সম্প্রতি সেই ঘটনার উল্লেখ করে বিষ্ণুপুরের (Bishnupur) বিজেপি সাংসদ সৌমিত্র খাঁ (Soumitra khan) টলিউডের একাংশকে যৌনকর্মী বলে তোপ দাগলেন। সৌমিত্র খাঁ এর এই ধরনের মন্তব্য কার্যত সমালোচনার মুখে ফেলেছে তাঁকে। রাজ্য রাজনীতির একাংশ মনে করছে বিধানসভা নির্বাচনের আগে এই ধরনের কদর্য মন্তব্য শুধুমাত্র সৌমিত্রের ইমেজ নষ্ট করেছে তা নয় সর্বোপরি সমগ্র দলের ভাবমূর্তিকে তলানিতে নিয়ে গিয়ে ফেলেছে। Bishnupur BJP MP Soumitra khan used controversial words for targeting actress Saayoni Ghosh.

সম্প্রতি পূর্ব বর্ধমানের বিজেপির (BJP) একটি দলীয় জনসভায় হাজির হয়েছিলেন বিজেপির যুব মোর্চার রাজ্য সভাপতি সৌমিত্র খাঁ (Soumitra khan। খণ্ডঘোষ এর বেড়ুগ্রামে সেই জনসভায় দাঁড়িয়ে সায়নী ঘোষের (Saayoni Ghosh) বিরুদ্ধে এই ধরনের কুরুচিকর মন্তব্য করেন। শুধু সায়নী ঘোষ কেই নয় এই কথার মাধ্যমে তিনি সমগ্র টলিউডের অভিনেত্রী দের বিরুদ্ধে কুরুচিকর মন্তব্য করেছেন বলে মনে করা হচ্ছে। টলিউডের (Tollywood) অভিনেত্রীরা একাংশকে যৌনকর্মী বলে অপমান করেছেন ভরা সভায়।

সম্প্রতি মেট্রো চ্যানেলে সায়নী ঘোষ (Saayoni Ghosh) সহ অভিনেত্রী নুসরাত জাহান সহ বহু অভিনেত্রী ঐদিন হাজির হন তাঁদের ব্যক্তিগত জীবন নিয়ে সমাজের কাটাছেঁড়া করার প্রতিবাদে। ঐদিন সেই অরাজনৈতিক ধরনা মঞ্চ থেকে গর্জে ওঠেন নুসরাত জাহান। অরাজনৈতিক এই সভায় নুসরাতের পাশে ছিলেন সায়নী ঘোষ। এই ঘটনাকে কেন্দ্র করে সৌমিত্র খাঁ (Soumitra khan) উল্লেখ করেন ধর্মতলায় বসে অভিনেত্রীরা নাটক করছেন। পাশাপাশি তিনি তৃণমূলে যোগ দেওয়া একাধিক তারকার উদ্দেশ্যে বলেছেন ‘তৃণমূলের চাকরে পরিণত হয়েছে কিছু অভিনেতা’। সৌমিত্রের কথায়, “যারা এই ধরনের কথা বলছে তারা যৌন পেশার সঙ্গে যুক্ত। আমার বিরুদ্ধে কেস করলে করতে পারো।”

শুধু তাই নয় সৌমিত্র আরো বলেন যারা শিব লিঙ্গের মাথায় গর্ভনিরোধক ক্যাপ পরান তারা এক প্রকার যৌনকর্মী। সায়নী ঘোষ গতবছর শিবরাত্রি পরের দিন সোশ্যাল মিডিয়ায় একটি পোস্ট করেছিলেন যেখানে দেখা গেছিল বুলাদি একটি শিব লিঙ্গের (Shiv Linga) ওপরে গর্ভনিরোধক ক্যাপ পরাচ্ছেন। এই ছবি শেয়ার করে সায়নী (Saayoni Ghosh) ক্যাপশনে লিখেছিলেন, “God cudnt have been more useful.”

সম্প্রতি সায়নী ঘোষ (Saayoni Ghosh) বিজেপির জয় শ্রীরাম ধ্বনিকে উল্লেখ করে মন্তব্য করায় সায়নীর পুরনো সেই পোষ্টটিকে ঘিরে নতুন করে জল ঘোলা শুরু হয়। এই ধরনের অপ্রীতিকর ঘটনা শুরু হলে সায়নী ঘোষ সোশ্যাল মিডিয়ায় নিজের একাউন্ট থেকে এক বছর পুরনো সেই পোষ্টটি ডিলিট করে দেন এবং দাবি করেন সেই সময় তাঁর সোশ্যাল মিডিয়া অ্যাকাউন্ট হ্যাক করা হয়েছিল।