জোর করে লিঙ্গ পরিবর্তন ঘটিয়ে, ৩ বছর ধরে ধর্ষণের শিকার ১৩ বছরের কিশোরী

এতগুলো বছর ধরে একটি দেশের রাজধানী হয়েও এখনো পর্যন্ত সেফ সিটি হয়ে উঠতে পারল না দিল্লি (Delhi)। নির্ভয়া কাণ্ডের রেশ কাটতে না কাটতেই দিল্লিতে একের পর এক ধর্ষণ কাণ্ড ঘটতে শুরু করে দিয়েছিল। কিন্তু এমন ঘটনা বোধ হয় এর আগে হয়নি। জোর করে লিঙ্গ পরিবর্তন করিয়ে এক কিশোরকে গণধর্ষণের সাক্ষী রইল রাজধানী। মাত্র ১৩ বছরের এক কিশোরকে জোর করে লিঙ্গ পরিবর্তন করিয়ে দীর্ঘ ৩ বছর ধরে গণধর্ষণ করে এক দুষ্কৃতী দল। যদিও এখনো অব্দি পুলিশের জালে তারা অধরাই। Delhi 13 years old boy forced to change sex, repeatedly raped by 6 people for 3 years.

The girl was raped and gave birth to a 13-year-old girl
The girl was raped and gave birth to a 13-year-old girl

দিল্লির গীতা কলোনিতে নির্যাতিত সেই কিশর আজ থেকে প্রায় তিন বছর আগে টাকা পেয়েছিল এই দুষ্কৃতী দলটির। আর্থিকভাবে দুর্বল এই নির্যাতিত কিশোর মূলত নাচ করেই রোজগার করত। বিভিন্ন অনুষ্ঠানে নৃত্য পরিবেশন করে বেড়াতো বছর তেরোর এই কিশোর। সেখানেই একদিন তার থেকে বয়সে বড় কয়েকটি ছেলের সঙ্গে দেখা হয়ে যায় তার। তাদের কাছ থেকে ওই নির্যাতিত কিশোরটি জানতে পারে তাদের সঙ্গে বন্ধুত্ব করলে তারা তাকে আরও নাচের অনুষ্ঠান পাইয়ে দেওয়ার সুযোগ করে দেবে। বদলে দেবে নগদ টাকা। অভাবের সংসারে এই প্রস্তাব তার কাছে ছিল হাতে স্বর্গ পাওয়ার মত। ক্রমেই তাদের সঙ্গে বন্ধুত্ব হয়ে যায় নির্যাতিত এই কিশোরটির।

কথামতো সেই দুষ্কৃতী দল কিছু অনুষ্ঠান ও পাইয়ে দেয় এই কিশোরটিকে। পাশাপাশি মন্ডাবলী তে গিয়ে মঞ্চ অনুষ্ঠানের প্রশিক্ষণও দেয় তারা। ক্রমেই ছেলেটির মগজের ঢুকিয়ে দেওয়া হয় যে নাচই তার ভবিষ্যৎ। অনুষ্ঠানের মাধ্যমে এভাবেই চলতে থাকে তার উপার্জন। কিন্তু কিছুদিন যেতে না যেতেই হঠাৎ করেই এক হাড় হিম করা অভিজ্ঞতার শিকার হয় সেই কিশোর। নাচের জন্য শরীর আকর্ষণীয় করে তোলার জন্য এই কিশোরটিকে নানান রকম ওষুধ খাওয়াতে‌ শুরু করে ওই দুষ্কৃতী দল। এমনকি অস্ত্রোপচার করে ওই কিশোরের লিঙ্গ পরিবর্তন করা হয়। পাশাপাশি চলতে থাকে নানান রকম হরমোনাল ওষুধ। যা খেলে ঐ কিশোরের শরীরে ক্রমেই মেয়েলি লক্ষণ পরিলক্ষিত হতে শুরু করে। এরপর এই দিনের পর দিন ধরে চলতে থাকে গণধর্ষণ।

একদিন দুষ্কৃতীদের চোখে ফাঁকি দিয়ে পালিয়ে গেলে ফের ধরে আনা হয় সেই কিশোরটিকে। পরে আবারো সুযোগ খুঁজে পালিয়ে যায় সেই কিশোরটি। পরে পুলিশের কাছে অভিযোগ দায়ের করে সেই দুষ্কৃতীদের বিরুদ্ধে। অপহরণ, যৌন অত্যাচার সহ পসকোর একাধিক ধারায় মামলা দায়ের করা হয় দুষ্কৃতীদের বিরুদ্ধে।