বিরুষ্কার মেয়ের ছবি ভাইরাল সোশ্যাল মিডিয়ায়! উপচে পড়ছে অনুরাগীদের শুভেচ্ছা

সোমবার বিরাট (Virat Kohli) এবং অনুষ্কার সংসারে আসে নতুন অতিথি। অনুষ্কা শর্মা (Anushka Sharma) জন্ম দেন ফুটফুটে একটি কন্যা সন্তানের। বহুদিন ধরেই বিরাট এবং অনুষ্কার এই সুখবর শোনার জন্য অনুরাগীরা অপেক্ষা করছিলেন। অবশেষে সেই অপেক্ষার অবসান হয়েছে। এমনকি প্রকাশ্যেও এসেছে বিরুষ্কার মেয়ের ছবি (Anushka baby girl)। বিরাট কোহলির দাদা বিকাশ কোহলি এই দিন মা এবং মেয়ের ছবি নিজের সোশ্যাল মিডিয়া হ্যান্ডেলে প্রকাশ করেন। first picture of Virat Kohli and Anushka Sharma baby girl shared by Vikas Kohli.

বিকাশ কোহলি‌ এই দিন অনুষ্কা এবং তার মেয়ের একটি ছোট্ট ভিডিও প্রকাশ করেন নিজের ইনস্টাগ্রাম একাউন্টে। সেই ছবি এবং ভিডিও প্রকাশিত হলে বিরাট এবং অনুষ্কার অনুরাগীরা অনুষ্কা এবং তার ছোট্ট মেয়ে কে ভালোবাসা এবং শুভেচ্ছায় ভরিয়ে দিয়েছে। সোশ্যাল মিডিয়ায় এই ছবি এবং ভিডিও আপলোড হলে তা সঙ্গে সঙ্গে ভাইরাল হয়ে যায় নেটদুনিয়া জুড়ে।

বিরাট কোহলি যখন তাদের পরিবারের এই নতুন সদস্যের আগমনের সুখবর জানান তখনই তিনি তার অনুরাগী এবং ফ্যান ফলোয়ার্স এর উদ্দেশ্যে একটি অনুরোধ রাখেন। বিরাট বলেন তাদের ব্যক্তিগত জীবনে হুটহাট করে যেনো কেউ ঢুকে না পড়েন। তাদের একটু ব্যক্তিগত সময় কাটাবার সুযোগ দেওয়া উচিত। তাদের একটু নিজস্ব সময় কাটানোর মত স্পেস দেওয়া উচিত বলে মনে করেছেন ভারতীয় এই ক্রিকেটার। তাদের ব্যক্তিগত জীবনে উঁকিঝুঁকি না দেওয়ার আর্জি জানিয়েছেন বিরাট। এর আগে অবশ্য বহুবার বিরাট এবং অনুষ্কার তরফ থেকে এই ধরনের ধার্য এসেছে কিন্তু তাদের অনুরাগীরা তা মানতে চাননি। নিজেদের সময় কাটানোর সময় পাপারাজ্জি লুকিয়ে এই হাইপ্রোফাইল জুটিকে ক্যামেরাবন্দি করলে সেই নিয়ে আপত্তি তোলেন বিরাট। অন্তত এই সময়ে যাতে অনুষ্কাকে একটু ব্যক্তিগত সময় কাটানোর সুযোগ করে দেওয়া হয় সেই আর্জি জানিয়েছেন তিনি।

সম্প্রতি অনুষ্কার মাতৃত্ব কালীন অবস্থায় বিরাট কোহলি ভারতীয় টেস্ট সিরিজ থেকে কিছু মাসের জন্য বিরতি নেন। এই সময়ে স্ত্রীর পাশে থাকাটা নিজের কর্তব্য বলে মনে করেছিলেন ভারতীয় অধিনায়ক। সেই মতই ভারতের টেস্ট থেকে কিছু মাস বিরত থাকার সিদ্ধান্ত নেন তিনি। কিন্তু বিরাটের এই সিদ্ধান্ত কে সোজা ভাবে মেনে নেননি ক্রিকেট দুনিয়ার একাংশ।

বিরাটের পিতৃত্বকালীন ছুটি নেওয়ার ঘটনা প্রসঙ্গ তুলে কপিল দেব বলেছিলেন বিরাটি ছুটি নেওয়ার ঘটনা একটি বিলাসিতা ছাড়া কিছুই নয়। পিতৃত্বকালীন ছুটি নেওয়ার কারণে বিরাট ভারতের টেস্ট সিরিজের একটি মাত্র ম্যাচেই খেলেছিলেন। তারপরেই তিনি ফিরে আসেন দেশে।