Sangbad World

অস্ট্রেলিয়া সফরের মাঝে বিরাটের পিতৃত্বকালীন ছুটি নিয়ে অনুষ্কাকে কটাক্ষ সুনীল গাভাস্কারের

IPL-এ বিরাট কোহলির (Virat Kohli) পারফরম্যান্স নিয়ে ইতিমধ্যে অনুষ্কা শর্মার (Anushka Sharma)সঙ্গে বাকবিতণ্ডায় জড়িয়ে পড়েছিলেন ভারতের প্রাক্তন অধিনায়ক সুনীল গাভাস্কার (Sunil Gavaskar)। সেই তর্ক বিতর্কর জের এখনো কাটেনি। বিরাটের পিতৃত্বকালীন ছুটি নিয়ে দেশে ফেরা নিয়ে অনুষ্কাকে কটাক্ষ সুনীল গাভাস্কারের।

ওয়ান ডে সিরিজ এবং টি ২০ সিরিজ পুরো খেললেও টেস্ট সিরিজের সবকটি ম্যাচ খেলতে পারবেন না ভারতীয় ক্রিকেট দলের অধিনায়ক বিরাট কোহলি। সেই সময়ে পিতৃত্বকালীন ছুটি নিয়ে দেশে ফিরতে চান বিরাট। কয়েক মাস আগে বিরাট এবং অনুষ্কা সোশ্যাল মিডিয়ায় একটি ছবি পোস্ট করেন যেখানে অনুষ্কার বেবি বাম্প স্পষ্ট ফুটে ওঠে ছবিতে। তারপরেই বিরুষ্কা জানান যে তাদের পরিবারের নতুন সদস্য আসতে চলেছেন।

ভারতের টেস্ট সিরিজ চলাকালীন সময়ে বিরাটের সন্তান আসতে চলেছে। সেই কারণেই বিরাট তার সন্তান এবং স্ত্রী এর পাশে থাকতে চান সেই সময়। তাই আগে থেকেই ওই সময়ের জন্য পিতৃত্বকালীন ছুটির আবেদন করেছিলেন বিরাট কোহলি। সেই নিয়েই কটাক্ষ প্রাক্তন ভারতীয় অধিনায়ক সুনীল গাভাস্কার এর।

বিরাটের পিতৃত্বকালীন ছুটি নেওয়ার ঘটনা প্রসঙ্গ কে তুলে কপিল দেব মন্তব্য করে বলেছেন বিরাটের পিতৃত্বকালীন ছুটি নেওয়ার ঘটনা একটি বিলাসিতা ছাড়া কিছুই নয়। পিতৃত্বকালীন ছুটি নেওয়ার কারণে বিরাট ভারতের টেস্ট সিরিজের একটি মাত্র ম্যাচে খেলতে পারবেন। তারপরেই তাঁকে ফিরতে হবে দেশে।

বিরাট এর পিতৃত্বকালীন ছুটি নেওয়ার ঘটনা প্রসঙ্গে কপিল দেব বিরাটকে তুলনা করেছেন সুনীল গাভাস্কার এর সঙ্গে।সন্তান জন্ম নেওয়ার সময় স্ত্রী এবং সন্তানের পাশে থাকার কারণে বিরাট যে ছুটি নিয়েছেন এই ঘটনাকে উল্লেখ করে কপিল দেব বলেছেন দেশের হয়ে ম্যাচ খেলবেন বলে সুনীল গাভাস্কার বহুদিন পর্যন্ত নিজের সন্তানের মুখ দেখতে পাননি। দেশের হয়ে খেলার জন্য এত বড় ত্যাগ কোন মুখের কথা নয়। সুনীল গাভাস্কার বলেছেন পরিস্থিতির গাম্ভীর্য বিচার করে তাঁর স্ত্রী সে সময় মানসিকভাবে তাঁর পাশে ছিলেন। সুনীল গাভাস্কারের এই সিদ্ধান্তকে পূর্ণ সমর্থন করেছিলেন তাঁর স্ত্রী।সুনীল গাভাস্কারের এই শেষ কথাটি থেকেই মনে করা হচ্ছে তিনি ঘুরিয়ে কটাক্ষ করেছেন অনুষ্কাকে। দেশের হয়ে খেলার থেকে স্ত্রীয়ের মাতৃত্বকালীন অবস্থায় স্ত্রীর পাশে থাকা এ ঘটনাকে বিলাসিতা বলে ব্যাখ্যা করেছেন কপিল দেব।

Exit mobile version