কপালে সিঁদুর, লাল পেড়ে সাদা শাড়ি দীপাবলির পোস্টে নজরকাড়া নুসরত, বুড়ো আঙুল কট্টরপন্থীদের!

টলিউডের (tollywood) অন্যতম জনপ্রিয় অভিনেত্রী নুসরাত জাহান (Nusrat Jahan)। কেবলমাত্র অভিনেত্রী থাকাকালীন তাঁর ফ্যান ফলোয়ার্স ছিল অসংখ্য। এরপর সাংসদ হিসেবে যখন জীবনের নতুন অধ্যায় শুরু করলেন নুসরাত তখন থেকে তাঁর ভক্তসংখ্যা প্রায় দ্বিগুন বেড়ে যায়। পাশাপাশি নিন্দুকের সংখ্যাও দিয়ে বাড়তে থাকে নুসরাতের। নিজে ইসলাম (islam) ধর্মাবলম্বী হয়ে কেন হিন্দু (hindu) ধর্মের আচার-অনুষ্ঠান পালন করেন সেই নিয়ে সমালোচনার ঝড় উঠলো ফের।

Nusrat Jahan durgapuja photo with red sari, husband Nikhil Jain

সম্প্রতি দীপাবলি (Diwali) অনুষ্ঠানে নুসরাত তাঁর স্বামী নিখিলের (Nikhil Jain) সঙ্গে একটি ছবি সোশ্যাল মিডিয়ায় আপলোড করেন। সেই ছবিকে ঘিরে শুরু হয় যত বিতর্ক। ছবিতে দেখা যায় এবং নিখিল পোজ দিয়েছেন একসাথে কিন্তু নুসরাতের কপালে সিঁদুরের মঙ্গল টিকা। এবং সেই মঙ্গল টিকা কালীপুজোর উৎসবের। এই থেকেই শুরু হয় নানা সমালোচনার ঝড়। নেটিজেনদের একাংশ বলে মুসলিম হয়ে কেন নুসরাত হিন্দু শ্বশুর বাড়ির সমস্ত আচার-আচরণ পালন করছেন।

এর আগেও নুসরাতের হিন্দু ধর্মের আচার-অনুষ্ঠান পালন করা নিয়ে উঠেছে অনেক কথা। রথ, দোল, দুর্গাপুজো কালীপুজো সমস্ত হিন্দু উৎসবে অংশগ্রহণ করেন ইসলাম ধর্মাবলম্বী নুসরাত জাহান। এমনকি এই বছরের দূর্গা পূজাতে (Durgapuja) সুরুচি সংঘের প্যান্ডেলে গিয়ে ঢাক বাজিয়েছেন নুসরাত। সঙ্গে ছিলেন সৃজিত এবং তার স্ত্রী মিথিলা। এই ঘটনাকে ঘিরেও কম জল ঘোলা হয়নি। মুসলিম হয়ে কেন হিন্দুদের দুর্গাপূজার মতো উৎসবে নুসরাত অংশগ্রহণ করবেন? এই প্রশ্নে ছেয়ে যায় সোশ্যাল মিডিয়া।

Nusrat Jahan durga puja photo post

পুজোর কিছুদিন আগে নুসরাত মা দুর্গার সাজে সেজে ত্রিশূল হাতে একটি ছবি পোস্ট করেন সোশ্যাল মিডিয়াতে। সেই ছবি ঘিরেও শুরু হয়ে যায় জল্পনা। এখানেও প্রশ্ন ওঠে ধর্ম নিয়ে। এমনকি বিয়ের পর প্রথম দিন যেদিন নুসরাত সংসদে আসেন সেদিন নুসরাতের সিঁথিতে ছিল চওড়া সিঁদুর, হাতে শাঁখা পলা। এই নিয়েও কম বিতর্কের মুখে পড়তে হয়নি নুসরাত কে। মুসলিম হয়ে কেন তিনি বিয়ের পর সিঁদুর পরবেন। প্রশ্ন ওঠে এই নিয়ে। এর উত্তরে নুসরাত বলেন তিনি সমস্ত ধর্মকেই সম্মান করেন। তিনি কী পরবেন না পরবেন তা সম্পূর্ণ তার ব্যক্তিগত ব্যাপার এ বিষয়ে কেউ কেন কথা বলবে?

এই সমস্ত ঘটনার জন্য প্রতি পদক্ষেপে ট্রোলড (troll) হতে হয়েছে নুসরাত জাহানকে। শুধুমাত্র তাই নয় পন্থীদের হুমকিও শুনতে হয়েছে নুসরাত কে। নুসরাত কেন রথযাত্রায় জগন্নাথদেবের রথের দড়ি টানেন, কেন পুজোয় ঢাক বাজান এসব নিয়ে মন্তব্য শুনতে শুনতে নুসরাতের তা এখন গা সওয়া হয়ে গেছে। তাই এই বিষয় নিয়ে আর কোনো রকম রাগারাগিতে যান না তিনি।

Nusrat Jahan Diwali photo post with her husband Nikhil Jain