ড্রাগ পার্টির জন্য WhatsApp গ্রুপ বানিয়েছিল রিয়া-সুশান্ত! কে কে ছিলেন সদস্য?

সুশান্ত সিং রাজপুতের রহস্যজনকভাবে অস্বাভাবিক মৃত্যুর পর একাধিক বলিউড সেলিব্রিটির বিরুদ্ধে ড্রাগ কানেকশনের অভিযোগ পাওয়া যায়। যা নিজের মুখে শিকার করে করে রিয়া চক্রবর্তী। এছাড়াও তিনি আরো 25 জন বলিউড সেলিব্রিটির নাম জানিয়েছেন নারকটিক্স কন্ট্রোল ব্যুরোকে। তবে এখনো নিশ্চিত হতে পারেনি সিবিআই, সুশান্তের মৃত্যুর কারণ কি? খুন নাকি আত্মহত্যা? তাঁর মৃত্যুর পেছনে কি বড়োসড়ো কোন ষড়যন্ত্র ছিল? সুশান্তের ব্যাংক একাউন্ট থেকে টাকা কোথায় গায়েব হয়ে গেলো?

এনসিবির তদন্তে ড্রাগ যোগের মামলাতে হেফাজতে রয়েছে রিয়া চক্রবর্তী। এছাড়াও এনফোর্সমেন্ট ডিরেক্টরের তদন্তে উঠে এসেছে নানা রকম তথ্য। যদিও সুশান্তের টাকার নয়ছয় করার মামলায় এখনো কোনো সমাধানে আসতে পারেনি এনফর্সমেন্ট ডিরেক্টর। তবে রোজই নতুন নতুন তথ্য এবং নাম উঠে আসছে এই তদন্তে। সম্প্রতি হোয়াটসঅ্যাপের একটি গোপন তথ্য সামনে এসেছে সংবাদমাধ্যমে। সুশান্তের বাড়ির পরিচালকদের সঙ্গে ড্রাগ নিয়ে লেনদেনের কথা বলার জন্য একটি হোয়াটসঅ্যাপ গ্রুপ খুলেছিলেন রিয়া এবং সুশান্ত।

সংবাদমাধ্যম সূত্রের খবর, সিবিআই, এনসিবি এবং ইডি একটি হোয়াটসঅ্যাপ গ্রুপের সন্ধান পেয়েছে। যেখানে বিভিন্ন ড্রাগ নিয়ে আলোচনা হতো। এনসিবির কাছে রিয়া চক্রবর্তী এই গ্রুপের কথা স্বীকার করে নিয়েছেন বলে খবর। ড্রাগ মজুত থাকতো পরিচালকদের কাছেই। যখন ড্রাগের প্রয়োজন পড়তো, তখন পছন্দমত ড্রাগ চেয়ে নিতেন রিয়া এবং সুশান্ত।

প্রসঙ্গত, রিয়া চক্রবর্তীর ভাই সৌভিক চক্রবর্তী সহ স্যামুয়েল মিরান্ডা, দীপেশ সাওয়ান্ত, বাসিদ পরিহার যাত্রা মাদক যোগে অভিযুক্ত হয়ে জেলহাজতে রয়েছেন। এনসিবির কাছে রিয়া এবং সৌভিক একাধিক ড্রাগ ব্যবসায়ীদের নাম বলেছেন। তবে এখন সময়ের অপেক্ষা, বলিউডের আর কত বড় বড় সেলিব্রিটিরা ড্রাগ মাফিয়াদের সঙ্গে সরাসরি যুক্ত, সেটা দেখার।

যদিও, রিয়া ষড়যন্ত্রের শিকার হয়েছেন, এই অভিযোগ জানিয়ে সোশ্যাল মিডিয়াতে #JusticeForRhea ক্যাম্পেইন চালিয়েছেন করিনা কাপুর খান, সনাম কাপুর, বিদ্যা বালান, স্বরা ভাস্কর সহ একাধিক বলিউড সেলিব্রিটি। তাদের অভিযোগ রিয়া চক্রবর্তীকে ষড়যন্ত্রের করে ফাঁসানো হচ্ছে।

অপরদিকে, সুশান্তকে খুন করা হয়েছে বলে সরব হয়েছেন একাধিক বলিউড সেলিব্রিটি। এছাড়াও, সুশান্তর মৃত্যুতে নাম জড়িয়েছে মহারাষ্ট্রের মুখ্যমন্ত্রী উদ্ধব ঠাকরের ছেলেরও। নেপোটিজম এবং মাফিয়া রাজের বিরুদ্ধে সরব হয়েছেন কঙ্গনা রানাওয়াতও। যদিও সালমান খান, শাহরুখ খান, আমির খান, অমিতাভ বচ্চনের মতো বড়-বড় অভিনেতারা মুখে কুলুপ এঁটেছেন।

Arindam

Content writer and blogger at Sangbad World